রেজি: নং - আবেদিত, প্রতিষ্ঠাকাল: ১মার্চ ২০১৪                                           রবিবার,  ১৩ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ,  ৩০শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ,  সকাল ৭:৪৮

দিপুকে সভাপতি এবং হোসেনকে সাধারণ সম্পাদক করে উপজেলা যুবলীগের কমিটি ঘোষণা

June 18, 2019 , 10:10 pm

অবশেষে সমস্ত জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে শরীয়তপুর সদর উপজেলা যুবলীগের আংশিক কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে।
১৮ জুন মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫ টায় জেলা যুবলীগের সভাপতি এম.এম জাহাঙ্গীর মৃধা এবং সাধারণ সম্পাদক নুহুন মাদবরের যৌথ স্বাক্ষরিত এক প্রেস নোটিশের মাধ্যমে এ কমিটি ঘাষনা করা হয়।

শরীয়তপুরের চৌরঙ্গীতে অবস্থিত শরীয়তপুর-১ আসনের সাংসদ জননেতা ইকবাল হোসেন অপু’র ব্যাক্তিগত অফিসে বসে প্রেস নোটিশটি পড়ে শুনান শরীয়তপুর জেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি এম.এম জাহাঙ্গীর মৃধা।

এ সময় বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য ও শরীয়তপুর-১ আসনের সাংসদ জননেতা ইকবাল হোসেন অপু এবং জেলা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নুহুন মাদবরসহ জেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ এবং স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রেস নোটিশে শরীয়তপুর সদর উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল হোসেন দিপু মিয়াকে সভাপতি এবং সদর উপজেলা যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হোসেন সরদারকে সাধারণ সম্পাদক করে একটি আংশিক কমিটি ঘোষণা করা হয়। অন্যান্য সদস্যদের নাম পরবর্তীতে প্রেস নোটিশের মাধ্যমে জানিয়ে দেয়া হবে।

কমিটি ঘোষণার সাথে সাথে তৃণমূল নেতাকর্মীদের মনে উৎসবের আমেজ বয়ে যাচ্ছে। তারা যেন নতুন করে প্রাণ ফিরে পেয়েছে। তৃণমূল কর্মীরা নিজ উদ্যোগে মিষ্টি বিতরণ করা শুরু করেছে।

এ ব্যাপারে নবনির্বাচিত সভাপতি বিল্লাল হোসেন দিপু মিয়া’র সাথে মুঠোফোনে আলাপকালে তিনি বলেন, আমি সর্বপ্রথম মহান আল্লাহ’র দরবারে শুকরিয়া আদায় করছি। পাশাপাশি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য ও শরীয়তপুর-১ আসনের সাংসদ জননেতা ইকবাল হোসেন অপু এবং জেলা যুবলীগের সভাপতি এম.এম জাহাঙ্গীর মৃধা ও সাধারণ সম্পাদক নুহুন মাদবরের প্রতি। তারা তৃণমূল নেতাকর্মীদের চাহিদার প্রতিফলন ঘটিয়েছেন। এ পদের জন্য তারা আমাকে যোগ্য মনে করেছেন। এ পদে আমাকে দেয়ায় তৃণমূল কর্মীদের মনের ইচ্ছা পূরণ হয়েছে। আমি চেষ্টা করবো তৃণমূল নেতাকর্মীদের সঠিক মূল্যায়ণ করার।

এ ব্যাপারে নতুন সাধারণ সম্পাদক হোসেন সরদারের সাথে মুঠোফোনে আলাপকালে তিনি বলেন, আমি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি শরীয়তপুর-১ আসনের সাংসদ জননেতা ইকবাল হোসেন অপু এবং জেলা যুবলীগের সভাপতি এম.এম জাহাঙ্গীর মৃধা ও সাধারণ সম্পাদক নুহুন মাদবরের প্রতি। তারা আমার নামটি এ পদে রেখেছেন। আমি জনগনের সেবা করে তাদের সম্মান ধরে রাখার চেষ্টা করবো।

উল্লেখ্য : কমিটি ঘোষনার দুইদিন আগে অর্থাৎ ১৬ জুন রবিবার সকাল সাড়ে ১১টায় পালং বাজারস্থ জেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে শরীয়তপুর সদর উপজেলা এবং পৌরসভা যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য এবং শরীয়তপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য ইকবাল হোসেন অপু।

সম্মেলনটি উদ্বোধন করেন জেলা যুবলীগের সভাপতি এম.এম জাহাঙ্গীর মৃধা। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি এবং শরীয়তপুর পৌরসভার সাবেক মেয়র আবদুর রব মুন্সি এবং শরীয়তপুর সদর উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান ফারুক তালুকদার। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নুহুন মাদবর।

এ সময় সদর উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল হোসেন দিপু মিয়া, জেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক মহসিন মাদবর, য়ুগ্ম আহ্বায়ক রাশেদুজ্জামান রাশেদ, শরীয়তপুর পৌরসভার প্যানেল মেয়র-১ বাচ্চু বেপারী, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক তাইজুল ইসলাম সরকার, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জহিরুল ইসলাম জুয়েল, পৌরসভা যুবলীগের আহবায়ক মোতালেব ঢালী, যুগ্ম আহবায়ক জাহাঙ্গীর বেপারী, ছাত্রনেতা আসাদুজ্জামান শাওন, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আলমগীর হোসেন, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুমন খান সহ জেলা যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, শ্রমিক লীগ, কৃষকলীগ, তাঁতীলীগ এবং মহিলা আওয়ামীলীগের নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Total View: 769

    আপনার মন্তব্য


[fbcomments]